মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

মাসিক সভা ও সিদ্ধান্ত সমূহ।

পাকড়ী ইউনিয়ন উন্নয়ন সভা এপ্রিল/২০১৩ মাসে অনুষ্ঠিত ১৩তম সভার  কার্য্য বিবরণী

সভার তারিখ                     ঃ  ০৩/০৪/২০১৩ইং, সকাল-১০-০০মিনিট

সভার স্থান                                    ঃ পাকড়ী ইউপি হল রুম

সভাপতি                          ঃ মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম

                                           চেয়ারম্যান

                                           পাকড়ী ইউপি,গোদাগাড়ী,রাজশাহী।

সভায় উপস্থিত ও অনুপস্থিত সদস্যবৃন্দঃ পরিশিষ্ট ক- ণে সন্নিবেশিত

সভাপতি সভায় উপস্থিত সদস্যবৃন্দকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন। অতঃপর সভায় নিম্ন-বর্ণিত বিষেয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়।

1.0                 পূর্ববতী সভার কার্যবিবরণী পঠন ও অনুমোদন

সভাপতির অনুমতিক্রমে পূর্ববর্তী সভার কার্যবিবরণী সভায় পাঠ করে শুনানো হয়। পঠিত কার্যবিবরণীতে কোনরুপ সংশোধনী না থাকায় তা সর্বসম্মতিক্রমে দৃঢীকরণ করা হয়।                                                                  

২.০০         ক) শরিক কর্মসূচীঃ

সচেতন শরিক কর্মসূচীর প্রতিনিধী,  পাকড়ী, গোদাগাড়ী, রাজশাহী সভায় উপস্থিত না থাকায় অত্র বিষয়ের কার্যক্রম সম্পর্কে কোন আলোচনা করা সম্ভব হলো না।

সিদ্ধান্তঃ

সভায় অনুপস্থিতির বিষয়ে আগামী সভায় ব্যাখা প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহিত হলো

খ) পরিবার পরিকল্পনাঃ

পরিবার পরিকল্পনা প্রতিনিধী  বলেন যে, প্রচুর রোগী আসে এবং গর্ভবতী মায়েরা চিকিৎসার জন্য আসে এবং জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রন এর জন্য আমরা কাজ করে যাচ্ছি। F.W ৭ জন কর্মী মাঠ পযায়ে ৭ জন F.W  কাজ করে ও সুষ্ঠভাবে সেব প্রদান করে।  খাবার বড়ি গ্রহন করেছে পুরাতন-২৬৪৭ নতুন-৪০ জন মোট=২৬৮৭ জন।  কনডম পুরাতন-৬৮২, নতুন-৩৮জন, মোট=৭২০জন। ইনজেকশন পুরাতন-১৬৮২ জন, নতুন-৩৩ জন, মোট=১৭১৫ জন। আই,ইউ,ডি পুরাতন-১১৭ জন, নতুন-৭ জন মোট=১২৪ জন। ইমপ্ল্যান্ট পুরাতন-৯৬ জন, নতুন-২ জন মোট=৯৮ জন। পুরুষ বন্ধ্যকরণ পুরাতন-৩৭৫ জন, নতুন-৫ জন মোট=৩৮০ জন। মহিলা বন্ধ্যকরণ পুরাতন-১২৬৭, নতুন-৫জন মোট=১২৭২ জন। সর্বমোট=৬,৯৯৬ জন। ইউনিয়নে পদ্ধতি গ্রহণকারীর হার=৮৫.৯১%।

সিদ্ধান্তঃ

জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, অত্র ইউনিয়ানের প্রতিটি নাগরিক যাতে সুষ্ঠ সেবা পাই তার উপর গুরুত্ব দেন এবং পরিবার পরিকল্পনা প্রতিনিধীকে অবহিত করেন।

গ) কমিউনিটি ক্লিনিকঃ

কমিউনিটি ক্লিনিক প্রতিনিধী, জয়রামপুর বলেন যে, নলকুপের সমস্যা এবং বিদ্যুৎ এর সমস্যা আছে। রুগী দেখা হয়েছে-৭৪৪, মহিলা-৪৫৮ জন, পুরুষ-২৮৬ জন, গর্ভবতী-৮ জন।

সিন্ধান্তঃ

জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, সকল সমস্যা সমাধানের ব্যবস্থ্যা করা হবে বিদ্যুৎ  এর জন্য জি,এম এর সাথে কথা বলা হবে এবং পানির সমস্যা এটি সকলের সমস্যা তা সমাধানের জন্য ব্যবস্থ্যা গ্রহন করা  হবে বলে আশ্বাস দেন এবং তিনি ট্র্যাক্র বিষয়ে গুরুত্ব সহকারে বলেন যে, ট্রাক্র হচ্ছে সরকারী অংশ প্রতিটি জনগনের জন্য ট্র্যাক্র পরিশোধ করা নাগরিক দায়িত্ব। 

ঘ) প্রতিবন্ধীঃ

প্রতিবন্ধী প্রতিনিধী, পাকড়ী, গোদাগাড়ী, রাজশাহী সভায় উপস্থিত না থাকায় অত্র বিষয়ের কার্যক্রম সম্পর্কে কোন আলোচনা করা সম্ভব হলো না।

সিদ্ধান্তঃ       সভায় অনুপস্থিতির বিষয়ে আগামী সভায় ব্যাখা প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহিত হলো

ঙ) পাকড়ী স্বাস্থ্য কেন্দ্রঃ

পাকড়ী স্বাস্থ্য কেন্দ্র প্রতিনিধী  বলেন যে, পাকড়ী স্বাস্থ্য কেন্দ্রে তেমন কোন সমস্যা নাই কিন্তু নলকুপটি নষ্ট হয়ে গিয়াছে পানির প্রচুর সমস্যা হচ্ছে। নলকুপটির পাইপ গুলো আছে তা নতুন ভাবে বসানোর জন্য অনুরোধ করেন এবং তিনি বলেন শনিবার করে কমিউনিটি ক্লিনিকে বসেন।

সিদ্ধান্তঃ

জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, সমস্যা সমাধানের জন্য ব্যবস্থ্যা গ্রহন করা হবে এবং যে, সকল নলকুপ গুলোর লোহার পাইপ আছে সে গুলো সংগ্রহ করে আবার নতুন ভাবে নলকুপ বসানো হবে। লোহার পাইপ এর নলকুপ যে সকল স্থানে আছে সে গুলো সংগ্রহ করার জন্য ইউপি সদস্যদের অবহিত করেন এবং কার্য্যকারী ব্যবস্থ্য গ্রহন করতে বলেন।

চ) প্রাণি সম্পদঃ

প্রাণী সম্পদ সেচ্ছসেবক  পাকড়ী, গোদাগাড়ী, রাজশাহী সভায় উপস্থিত না থাকায় অত্র বিষয়ের কার্যক্রম সম্পর্কে কোন আলোচনা করা সম্ভব হলো না।

সিন্ধান্তঃ

সভায় অনুপস্থিতির বিষয়ে আগামী সভায় ব্যাখা প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহিত হলো

ছ) কৃষিঃ

কৃষি প্রতিনিধী  উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মোঃ আশরাফুল হক বলেন যে, বোর মৌসুমে বিদ্যুৎ সমস্যা কম। রোগ বালাই কম। তিনি বলেন ধান লাগানের পর জমিতে ডাল ও কনচি দিলে পোকা দমন হয়। ভিজাবীজ তলার পরিবর্তে শুকনো বীজ তলাই অতি সহজে ২৫-৩০ দিনে চারা উৎপাদন করা সম্ভব এই পর্যন্ত পাকড়ী ইউপিতে ১১০টি শুকনো বীজতলা তৈরী করা হয়েছে। চারার অবস্থ্যা খুব ভালে এবং গড় বাড়তি ভালে। রোগ ও পোকা মাকড় এর আক্রমন কম। বর্তমানে সরিয়া একটি অতি লাভ জনক ফসল তিনি কয়েকটি উন্নতন জাতের সরিষার কথা বলেন যেমন- বিনা-৭, বারী-১১, বারী-১৪, বারী-১৫ হচেছ উচ্চ ফলনশীল সরিষা। সরিষার জাব পোকাতে আক্রমন করলে-ইমিটাপ, টিডে, এডমিয়ার এবং ছোলার ফল ছিদ্র করা পোকা দমনের জন্য রিপকর্ড, কর্ড, ডেসিস ইত্যাদি ব্যবহার করতে হবে তিনি আরও বলেন যে মুগ চাষ মাত্র ৬৫ দিনে হয় বিঘা প্রতি ৪ মন হয় এবং আউশ ধান চাষ বিষয়ে বলেন যে, বি-ধান-৪৮ ও বি-২৬ বিষয়ে বলেন। নভেম্বর-ডিসেম্বর মাসে বাংলাদেশের বাজারে কোন পিয়াজ থাকে না। বারী-৫ বিঘা প্রতি-৪৫-৫০ মন হয়।

সিন্ধান্তঃ

জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে এখন যেহেতু শীত মৌসুম সেহেতু প্রচুর শীতে ধানের চারা নষ্ট হয়ে যায় তাই শুকনো বীজতলা পদ্ধিতে চারা উৎপাদন করতে হবে এবং উন্নত জাতের ধানের বীজের কথা বলেন ও উচ্চ ফলন সম্পন্ন সরিষা, গম ও পিয়াজ চাষ করতে হবে এবং কৃষি অফিসারের পরামর্শ নিয়ে চাষাবাদ করলে উৎপাদন বৃদ্ধি পাবে।

জ) শিক্ষক প্রতিনিধীঃ

শিক্ষক প্রতিনিধী  পাকড়ী, গোদাগাড়ী, রাজশাহী সভায় উপস্থিত না থাকায় অত্র বিষয়ের কার্যক্রম সম্পর্কে কোন আলোচনা করা সম্ভব হলো না।

সিদ্ধান্তঃ      সভায় অনুপস্থিতির বিষয়ে আগামী সভায় ব্যাখা প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহিত হলো।

ঝ) জনস্বাস্থ্যঃ

জন স্বাস্থ্য প্রতিনিধি বলেন যে, চলতি অর্থ বছরে ৩৯টি নলকুপ হবে।

সিদ্ধান্তঃ জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, পূর্বে যে নলকুপ গুলো বসানো হয়েছে তার রিপোট খুব খারাপ তাই বর্তমানে যে নলকুপ গুলো বসানো হবে তা যাতে ভাল হয় সে বিষয়ে গুরুত্ব দিতে বলেন।

ঞ) সচেতন প্রতিনিধীঃ

সচেতন প্রতিনিধী, পাকড়ী, গোদাগাড়ী, রাজশাহী সভায় উপস্থিত না থাকায় অত্র বিষয়ের কার্যক্রম সম্পর্কে কোন আলোচনা করা সম্ভব হলো না।

সিদ্ধান্তঃ      সভায় অনুপস্থিতির বিষয়ে আগামী সভায় ব্যাখা প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহিত হলো।

ট) ডাসকে প্রতিনিধীঃ

ডাসকে প্রতিনিধী পাকড়ী, গোদাগাড়ী, বলেন যে, ডাসকো অনেক দিন যাবৎ কাজ করছে। গ্রাম উন্নয়ন পানি ও স্যানিটেশন নিয়ে কাজ করি। তিনি আরও বলেন নতুন প্রজেক্টের নাম ওয়াশ এবং তার কার্য্যক্রম গ্রাম উন্নয়নের জন্য ৮৬টি সি,বি,ও এর মধ্যে একজন করে প্রতিনিধি নেওয়া হবে এবং বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে আলোচনা করবে। নলকুপ মোরামত সম্পর্কে তিনি বলেন আগের মিস্ত্রীর কারনে সমস্যা হয়েছিল। বর্তমানে সমস্যা নাই।  

সিন্ধান্তঃ

জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, যেহেতু বরেন্দ্র অঞ্চলে পানির সমস্যা ব্যাপক সেহেতু পানি ও স্যানিটেশনের কাজ গুলো সুষ্ঠ সুন্দর ভাবে করার জন্য প্রতিনিধি কে অবহিত করেন।

ঠ) সমাজ সেবাঃ

সমাজ সেবা প্রতিনিধী পাকড়ী, গোদাগাড়ী, বলেন যে, ডিসেম্বর মাস পর্যন্ত প্রত্যেক ভাতা ভোগীর টাকা এসেছে। যারা মারা গিয়াছে তাদের কার্ড নতুন ভাবে করতে হবে। এবং বলেন যে, প্রতিটি ওয়ার্ড হতে ১০ জন পুরুষ, ১০ জন মহিলার অপেক্ষামান তালিকা দিতে হবে।

সিদ্ধান্ত।      জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, প্রতিটি ওয়ার্ড হতে  ২০ জন করে অপেক্ষামান তালিকাতে যাতে কার্ড পাওয়ার উপযুক্ত ব্যক্তির নাম গুলো আসে সে বিষয়ে প্রতিনিধি ও সকল সদস্যকে অবহিত করেন।  

ড) একটি বাড়ী একটি খামারঃ

একটি বাড়ী একটি খামার প্রতিনিধী বলেন যে, কৃষক সমবায় সমিতির সঞ্চয়-১,২৫,৬২৫/- শেয়ার-৪৬,১৩৬/- সমিতি-১১টি, সুফল ভোগী ৪৩০ জন,  অনুদান দেওয়া হয়েছে ২৫টি গরু, ঢেউটিন ১০ বান্ডিল, লেন বিতরণ-১৬,০০,০০০/- লেন আদায়-১,৩০,০০০/-

সিদ্ধান্তঃ জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, যারা সুফল ভোগী তার যেন হত দরিদ্র ব্যক্তি হয় এবং তাদের লেন দিয়ে তার জাতে উপকৃত হতে পারে সে বিষয়ে প্রতিনিধি কে অবহিত করেন।  

ণ) স্বাস্থ্য প্রতিনিধিঃ

স্বাস্থ্য প্রতিনিধি বলেন যে, ভিটামি-এ ক্যাপসুল এবং কৃমি নাশক ট্যাবলেট বিষয়ে যে, বিভিন্ন মিডিয়াতে কথা এসেছে তা সম্পর্কে বলেন। যেমন অসুস্থ্য শিশুকে খাওয়া যাবে না। তিনি বলেন যে আবার কৃমি নাশক ওষুধ খাওনো হবে। এটি আন্তজাতিক ভাবে পরীক্ষিত কোন ভয়ের কারন নাই। নিপা ভাইরাস সম্পর্কে বলেন যেমন খাজুর ও তালের রস, অর্ধেক খাওয়া ফল খাওয়া যাবে না কারন বাদুর হচ্ছে এই ভাইরাসের প্রধান বাহক এবং কমিউনিটি ক্লিনিক বিষয়ে বলেন এটি সরকারের গুরুত্বপুর্ন বিষয় এখান থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

সিদ্ধাস্তঃ জনাব সভাপতি সাহেব বলেন যে, চিকিৎসা মানুষের মৌলিক চাহিদা যাতে করে প্রতিটি মানুষ সুষ্ঠ সুন্দর ভাবে সেবা পাই সে বিষয়ে প্রতিনিধি কে অবহিত করেন।  

 

 

                 মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম

   চেয়ারম্যান,

   ৩ নং পাকড়ী ইউনিয়ন পরিষদ

                গোদাগাড়ী , রাজশাহী।

              ও

                        সভাপতি

                 ইউনিয়ন উন্নয়ন সভা

                  গোদাগাড়ী,রাজশাহী।

অনুলিপি সদয় অবগতি ও কার্যার্থে প্রেরণ করা হলঃ

 

০১। জনাব এ.কে.এম আতাউর রহমান খান, চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, গোদাগাড়ী, রাজশাহী।

০২। উপজেলা নির্বাহী অফিসার, গোদাগাড়ী, রাজশাহী।

                                                                                                           

০৩/০৪/২০১৩ইং তারিখে অনুষ্ঠিত পাকড়ী ইউপি উন্নয়ন সভার উপস্থিতি(স্বাক্ষরের ক্রমানুসারে)

ক্রমিক নং

উপস্থিত সদস্য গনের নাম

পদবী

স্বাক্ষর

০১

মোঃ অনোয়ারুল ইসলাম

চেয়ারম্যান পাকড়ী ইউপি,গোদাগাড়ী,রাজশাহী

স্বাক্ষরিত

০২

মোসাঃ শিউলী বেগম

 সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৩

মোসাঃ কামরুন নেসা 

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৪

মোসাঃ মার্জিনা বেগস 

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৫

মোঃ শামশুদ্দিন 

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৬

মোঃ আঃ জলিলুর রহমান রবু

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৭

মোঃ আঃ মতিন 

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৮

মোঃ জালাল উদ্দিন

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

০৯

মোঃ রেজাউল করিম

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

১০

মোঃ মাহবুবার রহামান

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

১১

মোঃ তরিকুল ইসলাম

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

১২

মোঃ এ,এস,এম আঃ আওয়াল

সদস্য পাকড়ী ইউপি

’’

১৩

মোঃ মনিরুজ্জামান

সচিব, পাকড়ী ইউপি

’’

১৪

মোঃ সিরাজুল কবির মামুন

সচেতন শরিক

অনুপস্থিত

১৫

মোঃ রেজাউল করিম

 স্বাস্থ্য পরিদর্শক

’’

১৬

মোঃ আবুল কালাম আজাদ

পাকড়ী ইউপি তথ্য ও সেবা কেন্দ্র

’’

১৭

মোঃ আশরাফুল ইসলাম

উপ-সহকারী কৃষি কর্মকতা

’’

১৮

মোসাঃ রওশন আরা -

পরিবার কল্যাণ সহকারী ঝালপুকুর

’’

১৯

সাত্তার আলী

এফ,পি,আই) পাকড়ী

’’

২০

 মোঃ রেজাউল করিম

সমাজ সেবা

’’

২১

 মোঃ রউশুদ্দিন

জন স্বাস্থ্য

’’

২২

মোঃ আলাউদ্দিন

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

২৩

মোসাঃ নাজমা বেগম

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

২৪

মোসাঃ তোহমিনা বেগম 

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

২৫

 মোসাঃ তাজকেরা বেগম

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

২৬

জাকারিয়া

নির্বাহী পরিদর্শক

’’

২৭

মোঃ আব্দুল হামিদ

মাঠ সংগঠক

’’

২৮

 মোসাঃ শেফালী  বেগম

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

২৯

ডাঃ ইকবাল হোসেন

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

৩০

 মোসাঃ সাবিনা বেগম

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

৩১

আমিন কিস্কু

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

৩২

মোঃ আফতাব হোসেন

ডাসকো

’’

৩৩

 মোসাঃ আনজেরা বেগম

স্ট্যান্ডিন কমিটির সদস্য

’’

৩৪

 মোসাঃ শামসুনাহার

F.W.A  জয়রামপুর কমিউনিটি ক্লিনিক

’’

৩৫

 মোসাঃ সানোয়ারা খাতুন

F.W.A  পাকড়ী

’’

৩৬

 মোসাঃ নাসিমা খাতুন

F.W.A  আইহাই কমিউনিটি ক্লিনিক

’’

৩৭

 মোঃ আব্দুল জাববার

H.A পাকড়ী -২

’’

৩৮

মোঃ সেরাজুল ইসলাম

মহাল্লাদার

’’

৩৯

মোঃ আইনাল হক

মহাল্লাদার

’’

৪০

মোঃ আজাহার আলী

অফিস সহকারী

’’

৪১

খাইরুল ইসলাম

মহাল্লাদার

’’

 


Share with :

Facebook Twitter